• A
  • A
  • A
চাঁচলে মুরগির মড়ক, আতঙ্কে গ্রামবাসী

মালদা, ৭ জানুয়ারি : চাঁচল দু'নম্বর ব্লকের গ্রাম পঞ্চায়েতে দেখা দিয়েছে মুরগির মড়ক। ফলে এলাকার আর্থ-সামাজিক অবস্থা খুবই খারাপ। খবর পাওয়া গেছে, মড়কের ভয়ে অনেকেই রোগাক্রান্ত মুরগি বাজারে বিক্রি করে দিচ্ছে। এলাকার বাসিন্দাদের অভিযোগ, মুরগির মড়ক দেখা দেওয়ার তাঁরা বিষয়টি ব্লকে জানান। কিন্তু কোনও ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। যদিও, বিষয়টি জানতে পেরেই প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে বলে দাবি করেন চাঁচলের মহকুমাশাসক। আক্রান্ত এলাকায় প্রশাসনিক টিম পাঠানো হচ্ছে বলে জানিয়েছেন BDO সাইপা লামা।

Loading the player...

কলোনিপাড়া, পূর্বপাড়া, মধ্যপাড়া, মুসলমানপাড়া সহ কয়েকটি এলাকায় মড়কের প্রকোপ বেশি। মাসখানেক আগে ওই এলাকায় মুরগি মারা যাচ্ছিল। এখন তা মড়কের আকার নিয়েছে।


গ্রামের বাসিন্দা শেখ শাহজাহান বলেন, "একমাস ধরে মুরগি মারা যাচ্ছে। গ্রামের প্রাণীবন্ধুদের তখনই সেকথা সবাই জানাই। ওদের লিখে দেওয়া ওষুধ এনে মুরগিকে খাওয়াচ্ছি। কিন্তু কোনও কাজ হচ্ছে না। আমার ২৫০-৩০০টি মুরগি ছিল। সব মরে শেষ। একমাস আগেও আমার বাড়িতে প্রতিদিন ১০-১৫টি ডিম হত। সেই ডিম বাড়িতে খাওয়ার পাশাপাশি বিক্রিও করতাম। এখন প্রতিদিন মরা মুরগি মাটিতে পুঁতে দিচ্ছি। অনেকে আবার মরা মুরগি যেখানে সেখানে ফেলে দিচ্ছে। এতে জীবাণু চারদিকে ছড়িয়ে পড়ছে। আক্রান্ত হচ্ছে ভালো মুরগিও। একবার আক্রান্ত হলে কিছুতেই আর সেই মুরগিকে বাঁচানো যাচ্ছে না। আক্রান্ত মুরগি কিছুক্ষণ ঝিমোচ্ছে, মুখ দিয়ে জল পড়ছে, ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই মারা যাচ্ছে। মুরগির এই মড়কে কী করব ভেবে পাচ্ছি না।"

একই বক্তব্য গ্রামের আরও এক বাসিন্দা আকতারি বিবিরও। তিনিও জানালেন, মুরগির মড়ক দেখা দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তাঁরা পশু চিকিৎসকের কাছে যান। কিন্তু চিকিৎসক তাঁদের কোনও কথাই শুনছেন না। তাঁর বাড়িতে ৫০-৬০টি মুরগি ছিল। সব মরে গেছে। বাড়িতে মুরগি-ছাগল পুষেই তাঁরা সংসার চালান। মুরগির এই মড়কে তাঁরাও ভীষণ সমস্যায় পড়েছেন।

গ্রামবাসীদের অভিযোগের নিশানায় ব্লক প্রাণীসম্পদ বিকাশ দপ্তরের আধিকারিক (BLDO) মৃণ্ময় মাঝি। গ্রামবাসীদের বক্তব্য, মাসখানেক আগে মুরগি মারা যেতে শুরু করলে তাঁরা প্রথমে মৃণ্ময়বাবুকে পুরো ঘটনাটি জানান। কিন্তু তিনি সমস্যা সমাধানে কোনও উদ্যোগ নেননি।

মহকুমাশাসক সব্যসাচী রায় জানান, বিষয়টি নিয়ে তিনি চাঁচল দু'নম্বর ব্লকের BDO-র সঙ্গে কথা বলেছেন। BDO গৌড়হণ্ড এলাকায় টিম পাঠাচ্ছেন। BLDO-কেও তিনি ওই এলাকায় টিম পাঠাতে বলেছেন।

CLOSE COMMENT

ADD COMMENT

To read stories offline: Download Eenaduindia app.

SECTIONS:

  হোম

  রাজ্য

  দেশ

  বিদেশ

  ক্রাইম

  খেলা

  বিনোদন-E

  ইন্দ্রধনু

  অনন্যা

  গ্যালারি

  ভ্রমণ

  ଓଡିଆ ନ୍ୟୁଜ

  আয়না ২০১৮

  MAJOR CITIES