• A
  • A
  • A
অবসরের বয়স নিয়ে কটাক্ষ, প্রধান শিক্ষককে চেয়ার থেকে ফেলে দিলেন সহকারী

আরামবাগ, ৯ জানুয়ারি : স্কুল চলাকালীন প্রধান শিক্ষককে চেয়ার থেকে ফেলে দেওয়ার অভিযোগ উঠল সহকারী প্রধান শিক্ষক ও দুই সহকারী শিক্ষকের বিরুদ্ধে। বর্তমানে তিনি আরামবাগ মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। ঘটনাটি আরামবাগের মায়াপুর ১ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের হাটবসন্তপুর হরপার্বতি ইনস্টিটিউশনের।


গতকাল স্কুল শুরু হওয়ার পরই ঘটনার সূত্রপাত। প্রধান শিক্ষক রবীন্দ্রনাথ হাজরার অভিযোগ, শিক্ষকদের অবসরের বয়স ৬২ বছর থেকে বাড়িয়ে ৬৫ বছর করার প্রস্তাব নিয়ে তাঁকে টিপ্পনী কাটেন সহকারী শিক্ষকরা। তাঁরা বলেন, আমাদের প্রধান শিক্ষক তো ৭৫ বছর স্কুলে থাকবেন। তা নিয়ে বাকবিতণ্ডা শুরু হয়। তারপর ক্লাস শুরু হয়ে যায়। চতুর্থ পিরিয়ডের সময় প্রধান শিক্ষকের সঙ্গে ফের বচসায় জড়িয়ে পড়েন সহকারী প্রধান শিক্ষক কমলেশ দাস অধিকারী ও দুই সহকারী শিক্ষক রতন রুইদাস ও প্রশান্ত ঘোষ।। প্রধান শিক্ষকের অভিযোগ, তারপরই তাঁকে চেয়ার সমেত তুলে ফেলে দেওয়া হয়। মাথা, হাত, কোমর, পায়ে চোট লাগে তাঁর। হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে রবীন্দ্রনাথবাবু বলেন, "চতুর্থ পিরিয়ডের পর আমি কাজ করার সময় তিনজন আসেন। আমায় বলেন আপনি কেন এরকম কথা বলবেন? আমার সঙ্গে তর্ক করছিল। আমি বোঝাচ্ছিলাম যে তর্কবিতর্ক নয়। তখন বলে বেশি কথা বললে ঘুষি মেরে নাক ভেঙে দেব। তাতে আমি বলি, অকারণেই মারবেন ? তারপরই আচমকা আমাকে চেয়ার সমেত তুলে ফেলে দেন তিন শিক্ষক।"


যদিও মারধরের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন সহকারী প্রধান শিক্ষক। তিনি বলেন, "মারধরের অভিযোগ পুরোপুরি মিথ্যে। দ্বিতীয় পিরিয়ড চলার সময় আমাকে উদ্দেশ্য করে প্রধান শিক্ষক অশালীন কথাবার্তা বলেন। জাতপাত তুলে বলেন। তখন আমি কিছু বলিনি। সেই সময় বেশ কয়েকজন অভিভাবকও ছিলেন। পরে পিরিয়ড শেষ হওয়ার পর আমি একটা দরখাস্ত নিয়ে যাই। আর বলি আপনি কেন এটা আমাকে বলেছেন। উনি বলেন বেশ করেছি। তারপর উত্তেজিত হয়ে পড়েন। বেশ কয়েকজন শিক্ষক তখন ছুটে আসেন। উত্তেজিত হয়েই তিনি চেয়ার থেকে উলটে পড়ে যান।"

আরামবাগ মহকুমার অতিরিক্ত জেলা স্কুল পরিদর্শক চন্দ্রকান্ত জাউলিয়া বলেন, "সহকারী প্রধান শিক্ষক ও প্রধান শিক্ষকের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে একটা বিবাদ রয়েছে। তবে এরকম মারধরের ঘটনা একবারেই কাঙ্খিত নয়। সমস্যা থাকতেই পারে। বিষয়টি অন্যভাবে সমাধান করা যেতে পারে। তাঁদের এরকম আচরণ বরদাস্ত করা উচিত নয়। আমরা খোঁজখবর নিয়ে দেখব। তদন্তও করা হবে। উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে, লিখিত বা মৌখিকভাবে কোনও অভিযোগ দায়ের করা হয়নি।"

CLOSE COMMENT

ADD COMMENT

To read stories offline: Download Eenaduindia app.

SECTIONS:

  হোম

  রাজ্য

  দেশ

  বিদেশ

  ক্রাইম

  খেলা

  বিনোদন-E

  ইন্দ্রধনু

  অনন্যা

  গ্যালারি

  ভ্রমণ

  ଓଡିଆ ନ୍ୟୁଜ

  আয়না ২০১৮

  MAJOR CITIES